বিতর্ক: অভ্র বনাম বিজয়

১. বিজয় কীবোর্ড আমার মতে অত্যন্ত জরুরী ও প্রয়োজনীয় একটি আবিষ্কার। ফোনেটিক ব্যবহার করে বাংলা টাইপ করা আপাতভাবে সহজ হতে পারে, তবে অন্য ভাষার বর্ণমালা দিয়ে বাংলা লেখা হাস্যকর, তাত্ত্বিক ও প্রায়োগিক দুই কারণেই৷ ইংরেজী বর্ণমালা দিয়ে বাংলা ভাষা টাইপ করতে হলে বাংলা ভাষার বিভিন্ন আঙ্গিক, বিশেষত যুক্তবর্ণের ব্যবহার সম্পর্কে অজ্ঞ থাকলেও চলে; ইংরেজী বর্ণমালাকে …

Continue reading বিতর্ক: অভ্র বনাম বিজয়

Advertisements

Poem: In Search of a Random Error

In the midst of this universal systematic noise A lone soul once sought randomness; Erred and erred- the pursuit of errors he continued In a world where perfection reigned supreme.   Unblemished by the machinery of the modernity, The man longed for a life in a long forgotten past; Where the union of nature and …

Continue reading Poem: In Search of a Random Error

কবিতা: দিকভ্রান্ত পথিকেরা

এই অজ্ঞাত লোকালয়ের দিবস সায়াহ্নে সমুখের  বিস্তৃত অরণ্যের কোলে যখন অন্ধকার নেমেছিলো, অনাশ্চর্য, স্থির সত্যের মতো এমনকি এখানেও দেখি – হংসবলাকারা আকাশের কোণ ঘেঁষে ঠিকই ফিরে যায় নিজ আবাসে।     প্রবল বাতাস বয় এখানে পূর্বমূখী, অথচ অদ্ভূত  স্থিরপ্রতিজ্ঞ পাখিরা যায় পশ্চিমে; পাখিরাও কি আগের কোন জন্মে পড়েছিলো রবীন্দ্রনাথ? তাই কি ‘অন্ধ, বন্ধ কোরো না …

Continue reading কবিতা: দিকভ্রান্ত পথিকেরা

কবিতাঃ জীবন-অরণ্য

সেদিন শ্রাবণশেষের মধ্যাহ্নে এক নিবিড় অরণ্যে হয়েছিলো সাক্ষাৎ তার সাথে; নিতান্তই দৈব ছিলো সে সাক্ষাৎ- চলতি পথে, কোন বটবৃক্ষের আড়ালে লুকিয়ে থাকা অসংখ্য ঘাসের আচ্ছাদনের গভীরে ছিলো সে ধ্যানমগ্ন; আমার অস্তিত্বে চেতন ফিরে পেয়ে সহসা ঘোষণা করলো সে নিজেকে, প্রকাশ্যে, এক দেবমূর্তির মতো যেনো আবির্ভূত হলো সে আমার সমুখে। এক অভূতপূর্ব শিহরণে স্পন্দিত হলো আমার …

Continue reading কবিতাঃ জীবন-অরণ্য

হিন্দুধর্মের স্বরূপ সন্ধানঃ উপসংহার (১ম অংশ)

(পূর্ববর্তী অষ্টম পর্ব এখানে) হিন্দুধর্মের বিশাল ও বিচিত্র বিশ্বাস-আচার-সংস্কার-দর্শন এর মধ্য থেকে এর একটি মূল সূত্রের সন্ধান লাভ করা কতটুকু আয়াসসাধ্য, তা সম্ভবত এ প্রবন্ধের পাঠকের কাছে ইতিমধ্যে স্পষ্ট হয়েছে। এছাড়া, আব্রাহামীয় ধর্মতত্ত্বের কাঠামোতে ভারতীয় ধর্মসমূহকে বুঝতে চাওয়ার প্রবণতাও হিন্দু বা বৌদ্ধ ধর্মের যথার্থ স্বরূপ নির্ণয়ে বাধাস্বরূপ, এ কথাও আমরা বলেছি। শেষতঃ আদৌ হিন্দুধর্মকে একটি …

Continue reading হিন্দুধর্মের স্বরূপ সন্ধানঃ উপসংহার (১ম অংশ)

কবিতাঃ নিষ্কাম কর্ম

স্বচ্ছসলিলা তরঙ্গিণীর প্রান্তঘেঁষা গিরিশেখরের আড়ালে এক নির্জন স্তব্ধ প্রাগৈতিহাসিক কুটির আছে; সে কুটির হতে প্রতি ভোরে নিষ্ক্রান্ত হন এক শুদ্ধ নিষ্কাম ভগবদ-অন্তঃপ্রাণ মহর্ষি।   হাজার বছর ধরে পুঞ্জীভূত হওয়া মানুষের সব অন্ধকার তার শরীরে লেপটে থাকে ঘন সবুজ শ্যাওলা হয়ে; হাজার বছরের সব আলো অনূদিত হয়ে তার মস্তকশীর্ষে পায় উজ্বল জ্যাোতিষ্কের রূপ।   প্রতি ভোরে …

Continue reading কবিতাঃ নিষ্কাম কর্ম

কবিতা: চক্রব্যুহ

সম্ভবত আর ক’টা দিন আর দিনের পিছে ছায়ার মতো ছুটে আসা রাত্রি; এরপরই অমাবস্যার অ‌ধিকার হবে সম্পূর্ণ, ছাপোষা কেরানি এ জীবনের মুছে যাবে সব ক্লান্তি।   এটুকু মরীচিকাদের কাল্পনিক চক্রব্যুহ জারি থাকুক এই ইত্যবসরে, শেষ রাতের ডুবন্ত প্রদীপের শেষ শিখাটির মতো একমাত্র আলো হয়ে জ্বলুক; কল্পনা-ই পরিণত হোক আমার একমাত্র দোসরে।   সিসিফাসের অনতিক্রম্য পাহাড়ের …

Continue reading কবিতা: চক্রব্যুহ